SylhetNewsWorld | হান্টার বাইডেনের কর বিষয়ে তদন্ত চলছে - SylhetNewsWorld
সর্বশেষ
 খেতাফে কুরআন শিক্ষার ফলাফল ও পুরুস্কার বিতরণ মাদ্রিদে আল মদিনা বাংলাদেশ জামে মসজিদের উদ্ভোধন নিজ এলাকায় মানুষের ভালোবাসায় সিক্ত অতিরিক্ত ডিআইজি ফয়সল মাহমুদ সিলেটে এক মাদ্রাসার ছাত্রকে অপহরন করে হত্যা চেষ্টার দায়ে ১২ জনের বিরুদ্ধে মামলা সিলেটে দিনব্যাপী মোবাইল সাংবাদিকতা প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত এশিয়া কাপ নারী ক্রিকেটে উদ্ভোধনি ম‍্যাচে বাংলাদেশের জয় সিলেটের সময় পত্রিকায় নির্বাহী সম্পাদক পদে পদোন্নতি পেলেন ফারহানা বেগম হেনা স্পেনে দূতাবাসের উদ্যোগে প্রদর্শিত ডকুড্রামা “হাসিনা—এ ডটার্স টেল” প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন পালন করেছে ফ্রান্স আওয়ামী লীগ প্যারিসে ক্রিকেট টুর্নামেন্ট উদ্বোধনীতে মেয়র আতিক

হান্টার বাইডেনের কর বিষয়ে তদন্ত চলছে

  |  ১৩:৪৭, ডিসেম্বর ১০, ২০২০

যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের ছেলে হান্টার বলেছেন, তার কর সংক্রান্ত বিষয়ে ডেলওয়ারের মার্কিন অ্যাটর্নি অফিস তদন্ত শুরু করে দিয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও তার মিত্ররা বহুদিন ধরে তাকে লক্ষ্যবস্তু বানিয়ে আসছিলেন। এবার তিনি বলেন, মঙ্গলবার আইনজীবীর কাছ থেকে আমি এ তদন্তের বিষয়ে জানতে পেরেছি।

তবে এর বাইরে বিস্তারিত কিছু বলেননি হান্টার। ডেলওয়ারে কেন্দ্রীয় কৌঁসুলিরাই তদন্তটি পরিচালনা করছেন এবং হান্টার তদন্তকে গুরুত্ব সহকারে নেয়ার কথা জানিয়েছেন।

নিরপেক্ষ পর্যালোচনা হলে তিনি যে যথাযথ ও আইনিভাবে কর্মকাণ্ড পরিচালনা করেছেন তা প্রমাণিত হবে বলেও আত্মবিশ্বাসী বাইডেনের ৫০ বছর বয়সী এ পুত্র।

যুক্তরাষ্ট্রে নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ও ভাইস প্রেসিডেন্ট ট্রানজিশন টিম জানিয়েছে, বাইডেন তার সন্তানকে নিয়ে খুবই গর্বিত।

ট্রানজিশন টিমের পক্ষ থেকে দেয়া বিবৃতিতে বলা হয়, সাম্প্রতিক মাসগুলোতে কুৎসিত ব্যক্তিগত আক্রমণসহ কঠিনসব চ্যালেঞ্জের বিরুদ্ধে লড়াই করেছেন হান্টার; এগুলো তাকে আরও শক্তিশালী হিসেবে হাজির করেছে।

বারাক ওবামা প্রশাসনে বাইডেন যখন ভাইস প্রেসিডেন্ট ছিলেন, সেই সময় ইউক্রেন ও চীনে হান্টারের ব্যবসায়িক কার্যক্রম ছিল; তা নিয়ে চলতি বছরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারণার সময় রিপাবলিকানরা ধারাবাহিকভাবে প্রশ্ন তুলেছিল।

গত বছরের ডিসেম্বরে ডেমোক্র্যাট সংখ্যাগরিষ্ঠ প্রতিনিধি পরিষদে ডোনাল্ড ট্রাম্প অভিশংসিত হয়েছিলেন ক্ষমতার অপব্যবহার এবং বাইডেন ও হান্টারকে নিয়ে তদন্তে ইউক্রেনকে চাপ দেয়া প্রসঙ্গে কংগ্রেসের তদন্তে বাধা দেয়ার অভিযোগে।

পরে ফেব্রুয়ারিতে রিপাবলিকান নিয়ন্ত্রিত সিনেটে খালাস পান তিনি।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ