SylhetNewsWorld | সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের বিষয়ে যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী - SylhetNewsWorld
সর্বশেষ
 চট্টগ্রামে প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশের সাথে পরিবেশ-বান্ধব নৌপরিবহন সেক্টর গড়ে তুলতে যুক্তরাজ্যের আগ্রহ প্রকাশ হিজাব ইস্যুতে বিক্ষোভে নিহত ২০০, স্বীকার করলো ইরান খালেদা জিয়ার বাসার সামনে পুলিশের তল্লাশি চৌকি সেচ্ছাসেবক দল সুইডেন শাখার সদস্য সংগ্রহ কর্মসূচি সিলেটে লিভার সংক্রান্ত সচেতনামূলক সভা অনুষ্ঠিত অশ্রুঝরা মুনাজাতে লাখো মানুষের ‘আমিন’ ধ্বনি : সমাপ্ত হলো ঐতিহাসিক ইজতেমা সিলেটে কর্মরত সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করলেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এডভোকট নাসির উদ্দিন খান সামাদ আজাদ ও ড. হারিছ আলী স্মৃতি বৃত্তি-২০২২ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত স্পেনে বৃহত্তর কুমিল্লা সমিতির অভিষেক অনুস্টিত

সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের বিষয়ে যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী

  |  ১৬:২৮, আগস্ট ১৩, ২০২১

সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের বিষয়ে যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী
সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের বিষয়ে যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী

পূর্ব ঘোষণা অনুসারে আগামী নভেম্বরে এসএসসি এবং ডিসেম্বরের মাঝামাঝি সময়ে এইচএসসি পরীক্ষা নেয়ার জন্য সকল প্রস্তুতি রয়েছে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের ওপর বর্তমানে অ্যাসাইনমেন্ট কার্যক্রম চলছে জানিয়ে তিনি বলেন, আশা করছি, করোনাভাইরাস পরিস্থিতির উন্নতি হলে উল্লেখিত সময়ে দুটি পরীক্ষা আমরা নিতে পারব।

আজ বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিবের ৯১তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে মহিলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক আলোচনা সভা ও হুইল চেয়ার বিতরণ শেষে এসব কথা বলেন শিক্ষামন্ত্রী।

ডা. দীপু মনি বলেন, করোনা পরিস্থিতি অনুকূলে আসলে আগামী নভেম্বরে এসএসসি, ডিসেম্বরের মাঝামাঝি এইচএসসি পরীক্ষা নেয়া হবে। এই সময়ে যদি পরিস্থিতি অনুকূলে না আসে সেক্ষেত্রে গত বছরের মতো এবারও সাবজেক্ট ম্যাপিং করে শিক্ষার্থীদের ফলাফল দেয়া হবে। তবে এখনো আমরা পরীক্ষা নিয়েই ফলাফল দিতে চাই।

প্রস্তুতির ক্ষেত্রে শিক্ষার্থীদের যেন কোনও ঘাটতি না হয় সেজন্য শিক্ষার্থীদের সংক্ষিপ্ত সিলেবাস সেভাবেই সাজানো হয়েছে। আশা করি শিক্ষার্থীদের প্রস্তুতিতে কোনও সমস্যা হবে না। সেই সঙ্গে শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় টিকা কার্যক্রম চলছে।

উল্লেখ্য, ২০২০ সালের ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত হয় এবং এর দশ দিন পর ১৮ মার্চ প্রথম এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে একজনের মৃত্যু হয়। এরপর ওই বছরের ১৭ মার্চ থেকে দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়। পরে দফায় দফায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়িয়ে সর্বশেষ তা আগামী ৩১ আগস্ট পর্যন্ত করা হয়।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ