সর্বশেষ

স্ত্রীর হাতে মার খেয়ে স্বামীর সংবাদ সম্মেলন

  |  ১৭:৪১, জানুয়ারি ০৭, ২০২১

স্ত্রীর প্রতারণামূলক কর্মকাণ্ড থেকে বাঁচতে দিনাজপুর প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেছে মো. সাইফুল ইসলাম নামে এক স্বামী। তার বাড়ি দিনাজপুর বোচাগঞ্জ উপজেলার শুকদেবপুর গ্রামে।

রোববার (৩ ডিসেম্বর) দিনাজপুর প্রেস ক্লাব মিলনায়তনে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।
সংবাদ সম্মেলনে সাইফুল বলেন, দিনাজপুর শহরের পৌর এলাকার এক মেয়ের সঙ্গে ২০১৬ সালের ২৬ মে রেজিস্ট্রি কাবিন মূলে ৪ লাখ ১ টাকা দেনমোহরে আমার বিয়ে সম্পন্ন হয়। বর্তমানে আমার স্ত্রী গরুল গাঁ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বিরল দিনাজপুরে সহকারী শিক্ষিকা হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।

তিনি বলেন, সংসার চলাকালীন আমাদের দুই মেয়ে সন্তান জন্মগ্রহণ করে। আমার অনুপস্থিতে স্ত্রীকে তার দুলাভাই মো. জাহাঙ্গীর আলম ও মা মেহেরুন বেগম বাড়িতে এসে কু-পরামর্শ দিত। তাই সে সংসারে প্রতি উদাসীন হয়ে বেপরোয়াভাবে চলাফেরা শুরু করে। তার দুলাভাই ও মায়ের কু-পরামর্শে সে আমার কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়, আমাকে পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন করে দেয়। এরই মধ্যে আমাদের সংসারে কলহ বিবাদের সৃষ্টি হয়।

পাওনা টাকা ও সংসারের উদাসীনতার কথা বললে জাহাঙ্গীর আলম, মনসুর আলী ও আমার স্ত্রীসহ তারা আমার গায়ে হাত তোলে এবং হত্যার হুমকি দেয়।
তিনি বলেন, আমার স্ত্রীর এলাকার লোকের মাধ্যমে জানতে পারি ২০১৩ সালের ১১ এপ্রিল তার বিয়ে হয় অন্যের সঙ্গে। যা গোপন রাখা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি স্ত্রীর প্রতারণামূলক কর্মকাণ্ডের হাত থেকে রক্ষা এবং সন্তানদের সঙ্গে সাক্ষাতের সুযোগ করে দেয়ার জন্যে প্রশাসনের সহযোগিতা চান। তবে এ ব্যাপারে অভিযুক্ত স্ত্রীর সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তার কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ