সহযোগিতা করুন, সুন্দর শহর উপহার দিবো: আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী

প্রকাশিত: ৬:১৬ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২০, ২০২৪ | আপডেট: ৬:১৬:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২০, ২০২৪

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র, মো. আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী সিলেটের ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে বলেছেন,আপনারা আমাকে সহযোগিতা করুন, আমরা আপনাদের একটি সুন্দর বাসযোগ্য ব্যবসাবান্ধব নগরী উপহার দিবো। আধ্যাত্মিক এই নগরীর পর্যটন সম্ভাবনাকে শতভাগ কাজে লাগাতে পারলে সিলেট সর্বক্ষেত্রে এগিয়ে যাবে।

ব্যবসা-বাণিজ্যে গতি আসবে। এত সামগ্রিকভাবে নগরবাসীর জীবন-যাত্রার মান উন্নত হবে। তবে এজন্য ব্যবসায়ীসহ সবমহলের আন্তরিক সহযোগিতা প্রয়োজন।

তিনি আজ শনিবার (২০ জানুয়ারি) দুপুরে নগরীর একটি অভিজাত হোটেলোর হল রুমে সিলেট নগরীর ব্যবসায়ীদের সাথে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন।

মৌলভীবাজার -২ আসনের সংসদ সদস্য শফিউল আলম চৌধুরী নাদেলের সভাপতিত্বে ও নজরুল ইসলামের পরিচালনায় মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন সিলেট চেম্বারের সভাপতি তাহমিন আহমদ।

এসময় মেয়র, ব্যবসায়ীদের বিভিন্ন দাবির কথা মনোযোগ দিয়ে শুনেন এবং তাদের যুক্তিক দাবির প্রতি একাত্বতা ঘোষনা করে দ্রুত সমাধানের আশ্বাস প্রদান করেন।

এসময় ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের মধ্যে উপস্থত ছিলেন ও বক্তব্য রাখেন দোকান মালিক সমিতির সভাপতি মো. মাহবুবুর রহমান, সিলেট চেম্বারের পরিচালক ও সিলেট জেলা ক্রিড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাহি উদ্দীন আহমদ সেলিম, দি সিলেট চেম্বারের পরিচালক মো. হিজকিল গুলজার, সিলেট মেট্টোপলিটন চেম্বারের পরিচালক মো. ফেরদৌস আলম, আমদানী রপ্তানী কারক আতাউর রহমান কাছামিয়া, সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বারের পরিচালক মো. হুরায়রা ইফতার হোসেন, সিলেট মহানগর ব্যবসায়ী ঐক্য কল্যান পরিষদ ১ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হাদী পাবেল, সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বারের পরিচালক রাজীব ভৌমিক, সিলেট সিটি সেন্টারের সভাপতি মুমিন মল্লিক, সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বারের পরিচালক মো. জহির হোসেন, দরগাহ মাদরাসার মুফতি নেহাল উদ্দিন, ভেজিটেবল মার্কেটের সভাপতি মো. ছাদ মিয়া, সহ সভাপতি আলেক মিয়া, ব্যবসায়ী রাজু আহমদ, সিলেট চেম্বারের পরিচালক আলীমুল এহসান চৌধুরী, এসসিসিআই’র পরিচালক ফাহিম আহমদ চৌধুরী, মোহাম্মদ আলিম, বাংলাদেশ রেস্তোরা মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. নুরুজ্জমান সিদ্দিকী, বাংলাদেশ জুয়েলার্স এসোসিয়েশনের বিভাগীয় প্রধান নীহার কুমার রায়, নয়াসড়ক বিজনেস এসোসিয়েশনের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তাহমিদুল হাসান জাবেদ, সহ-সভাপতি সিলেট জেলা অটো রাইছ মিল এসোসিয়েশন মো. শফিকুল ইসলাম, আলমারজান শপিং সিটির সভাপতি হোসেন আহমদ, মো. আব্দুর রহিম, এস এম সায়েক তালুকদার, মুক্তিযোদ্বা সংসদ মার্কেটের সভাপতি গোলাম কিবরিয়া মাসুক, মেসার্স রুবেক এন্টারপ্রাইজের সত্ত্বাধিকারী মো. রিমাদ আহমদ রুবেল, দরগাহ বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সহ-সভাপতি মো. লুতফুর রহমান লিলু, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সিলেট জেলা ব্যাবসায়ী সমিতি সরোজ ভট্রাচার্জ,সিলেট জেলা ব্যাবসায়ী সমিতির সহ-সাংগঠিনিক সম্পাদক জাহাজ্ঞীর আলম, মিতালী ম্যানশনের সভাপতি অলিউর রহমান চৌধুরী, বাজুস সভাপতি মো. মাহবুবুর রহমান, মুক্তিযোদ্বা মার্কেটের সাধারণ সম্পাদক অসর দেব নাথ, মো. জাহাজ্ঞির আলম, মুফতি আনিসুর রহমান তিতাস, হাসান মার্কেটের সাধারণ সম্পাদক নিয়াজ মো. আজিজুল করিম, সাধারণ সম্পাদক ওয়াহিদভিউ মার্কেট ইয়াসমিন সুমন, সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বারের প্রতিষ্টাতা সদস্য ইমরান আহমদ, ফয়জুল হক, ওয়েষ্ট ওয়ার্ল্ড শপিং সিটির শোয়েব আহমদ(অভি) , স্বপ্ন ইভেন্ট ম্যানেজমেন্টের মো. গিয়াস উদ্দিন, ব্যাবসায়ী সমিতির সচিব মনোজ কুমার দাস, সহ-সভাপতি ট্রেড সেন্টার মো. কয়ছর আলী, সভাপতি পুরাতন হকার্স মার্কেট শেখ মো. কবির আহমদ, রাসেল আলী, মাধুরী পুষ্প কেন্দ্রের মো. মনিরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক সামাদ সুপার মার্কেট মো. সুয়েব আহমদ, সভাপতি সামাদ সুপার মার্কেট আলী মিয়াজ মোস্তাক, আল-মারজান মার্কেটের মো. লায়েক আহমদ, সিলেট জেলা ব্যাবসায়ী সমিতির জাবেদুল ইসলাম দিদার, মো. মাহফুজুর রহমান মুন্না,টিটু সাহা, জাবেদ কাদির রাজা, মো. ইরশাদ আলী, আলী হোশেন,তানিমুল ইসলাম, ইমাম উদ্দিন কামাল, নুরুল ইসলাম সুমন, মো. হাবিবুর রহমান, মো. মারুফ আহমদসহ অন্যান্য ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ।